Posted on 1 Comment

[part-1]দেখে নিন ডায়াবেটিস রোগ কি? আর এই রোগের ৮টি লক্ষন?? এবং ডায়াবেটিস রোগ নিয়ন্ত্রন রাখার নিয়ম?

[start]

[img id=746]

[h2]ডায়াবেটিস রোগ কি??[/h2]


ডায়াবেটিস  হলো এক ধরনের বিপাকজনিত রোগ।

আমরা যখন কিছু খাই,এটি গ্লুকোজে পরিণত হয়ে রক্তের মাঝে আসে। প্যানক্রিয়াস থেকে ইনসুলিন নামে এক ধরনের হরমোন নিগত হয়,যেটি রক্তের এই গ্লুকোজকে শক্তিতে রূপান্ত্রিত করে।

কারো ডায়াবেটিস হলে প্যানক্রিয়াস প্রয়োজন মতো ইনসুলিন তৈরি করতে পারে না কিংবা শরীর ইনসুলিনকে ব্যবহার করতে পারে না।

যে কারণে রক্তে গ্লুকোজের পরিমাণ বেড়ে যায়। ডায়াবেটিস ছোয়াচে বা সংক্রামক রোগ নয়। ডায়াবেটিস হৃদযন্ত্রের রক্তপ্রবাহ রোগের ওপর পরোক্ষভাবে প্রভাব বিস্তার করে।
ডায়াবেটিসেআক্রান্ত ব্যক্তির রক্তে শকরার পরিমাণ বেশি থাকায় এটি দেহের বিভিন্ন অঙেগর, যমন হৃৎপিন্দ্ব,কিডনি,চোখ ইত্যাদির সাভাবিক কাজে বাধা গঠন করে। দেখা গেছে ডয়াবেটিস রোগিদের করোনারি হৃদরোগ হওয়ার প্রবনতা বেশি থাকে।

  এটি হৃৎপিডকে অচল করে দেয় এবং রোগি  ইস্তক হয়ে মারা যেতে পারে। এছাড়া  দীঘস্থায়ী ডায়াবেটিস রোগ রক্তচাপ বেড়ে যায় এবং এর থেকে উচ্চ রক্তচাপ বা হাইপারটেনশন হয়।উচ্চ রক্তচাপ করোনারি হৃদরোগের পূবলক্ষণ। ডায়াবেটিস রোগীদের রক্তে শকরার মাএা দীঘদিন অনিয়ন্ত্রিত থাকলে তাদের করোনারি হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার আসঙকা খুবই বেশি থাকে।

[h2]ডায়াবেটিস রোগ নিয়ন্ত্রণ রাখার নিয়ম:[/h2]

ডায়াবেটিস প্রধানত তিনভাবে নিয়ন্ত্রন করা যায়।যথা:(ক)খাদ্য নিয়ন্ত্রণ(খ)ওষুধ সেবন এবং(গ)জীবন শৃঙখলা। 
[h2](ক)খাদ্য নিয়ন্ত্রণ: [/h2]
মোটা লোকেদের ডায়াবেটিস হলে তাদের ওজন সাভাবিক না হওয়া পযন্ত খাদ্যদ্রব্য ডাক্তারের পরামশ অনুযায়ী খেতে হবে। ডায়াবেটিস রোগিদের একটুু চিনি খাওয়া চলবে না। তাদের এমন খাবার খাওয়া ঊচিত,যা প্রোটিনসমৃদ্ধ।
[h2](খ) ওষধ সেবন:[/h2]
সব ডায়াবেটিস রোগীকেই খাদ্য নিয়ন্ত্রণ মেনে চলতে হয়।অনেক ক্ষেত্রে বয়স্ক রোদের এ দুটি নিয়ম যথাযথভাবে পালন করলে রোগ নিয়ন্ত্রণে এসে যায়। কিন্তুু ইনসুলিননিভর রোগীদের ক্ষেএে উনসুলিন ইনজেকশনের দরকার হয়।

[h2](গ) জীবন শৃঙখলা:[/h2]
শৃঙখলা ডায়াবেটিস জীবন- কাঠি।তাকে এসব বিষয়ে বিশেষ নজর দিতে হবে:

১.নিয়মিত ও পরিমাণমতো সুষম খাবার খেতে হবে।

২.নিয়মিত ও পরিমাণমতো ব্যায়াম করতে হবে।

৩.নিয়মিত রক্তে গ্লুকোজের পরিমাণ পরিমাপ করে এবং ফলাফল পযাবেক্ষণ করতে হবে।

৪.চিনি জাতিয খাবার খাওয়া সম্পূণ ছেড়ে দিতে হবে।

[h2]ডায়াবেটিস রোগের ৮টি লক্ষন:[/h2]

১.ঘন ঘন প্রস্রাব হওয়া, বিশেষ করে রাত ঘন ঘন প্রস্রাব হওয়া।

২.খুব বেশি পিপাসা লাগা

৩.বেশি ক্ষুধা লাগা

৪.পরিমান মতো খাওয়া সত্তেও ওজন কমে যাওয়া।

৫.চামরা শুকিয়ে যাওয়া।

৬.চোখে ঝাপসা দেখা।

৭.সামান্য পরিশ্রমে ক্লান্তি ওদুবলতা বোধ করা।

৮. শরীরের কোথাও কেটে গেলে দেরিতে শুকানো।

ইত্যাদি।
[end]